• NEWS PORTAL

  • বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

রাঙ্গামাটিতে পৌনে ২ কোটি টাকার মসজিদসহ বিভিন্ন প্রকল্পের উদ্বোধন

রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১২:৪২, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
রাঙ্গামাটিতে পৌনে ২ কোটি টাকার মসজিদসহ বিভিন্ন প্রকল্পের উদ্বোধন

পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর (উশৈসিং) এমপি শুক্রবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সকালে রাঙ্গামাটির কাপ্তাই উপজেলার রাইখালীতে ১ কোটি ৭৭লক্ষ টাকার মসজিদ, মন্দির ও বিহারসহ বিভিন্ন প্রকল্পের উদ্বোধন করেছেন। পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনায়, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন করে। 

এসময় পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুই প্রু চৌধুরী, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস-চেয়ারম্যান মোঃ নুরুল আলম চৌধুরী (অতিরিক্ত সচিব), পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের সদস্য প্রশাসন ড.ইফতেকার আহমেদ (যুগ্ম সচিব), রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদ সদস্য অংসুই ছাইন চৌধুরী, দীপ্তিময় তালুকদার, কাপ্তাই উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ মফিজুল হক, কাপ্তাই উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুনতাসির জাহান, কাপ্তাই সার্কেল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রওশন আরা রব, চন্দ্রঘোনা থানার ওসি ইকবাল বাহার চৌধুরী, সাবেক জেলা পরিষদ সদস্য থোয়াইচিং মং মারমা, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক ইব্রাহিম খলিল, ১নং চন্দ্রঘোনা ইউপি চেয়ারম্যান আক্তার হোসেন মিলন, ২নং রাইখালী ইউপি চেয়ারম্যান মংক্য মারমা, ৩নং চিৎমরম ইউপি চেয়ারম্যান ওয়েশ্লি মং চৌধুরী, ৫নং ওয়াগ্গা ইউপি চেয়ারম্যান চিরঞ্জিৎ তনচংগাসহ গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

এ সময় পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বলেন, পার্বত্য অঞ্চলের উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অত্যন্ত আন্তরিক। তিনি বলেন, পার্বত্য অঞ্চলের বিভিন্ন সমস্যার সমাধানে এবং ক্ষুদ্র জাতি গোষ্ঠীর উন্নয়নে কাজ করে গেছেন বলেই আজ জাতিসংঘের তথ্য অনুযায়ী বিশ্ব সেরা ২য় প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত হয়েছেন। এটা আমাদের জন্য বড় প্রাপ্তি।

উদ্বোধনকৃত প্রকল্পগুলো হচ্ছে ৯০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে কাপ্তাই উপজেলাধীন রায় সাহেবের বৌদ্ধ বিহার নির্মাণ, ৩৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে শ্রীশ্রী ত্রিপুরা সুন্দরী কালী বাড়ির গীতা শিক্ষা ভবন নির্মাণ, ৩২ লক্ষ টাকা ব্যয়ে নারান গিরিমুখ মসজিদুল আকসা ভবন নির্মাণ ও ২০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ড্রাগন স্পোটিং ক্লাব নির্মাণ করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড।

বিভি/এজেড

মন্তব্য করুন: