• বৃহস্পতিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২১ | ১৩ কার্তিক ১৪২৮

BVNEWS24 || বিভিনিউজ২৪

নদীতে কাগজের নৌকা ভাসিয়ে ভিন্নরকম প্রতিবাদ

প্রকাশিত: ১৩:৫৯, ৫ অক্টোবর ২০২১

আপডেট: ১৫:০৮, ৫ অক্টোবর ২০২১

ফন্ট সাইজ
নদীতে কাগজের নৌকা ভাসিয়ে ভিন্নরকম প্রতিবাদ

ছবি: বিভি ডিজিটাল

রাজধানীর রামপুরা হয়ে বয়ে যাওয়া নড়াই নদী এখন সরকারি নানান নথিপত্রে রামপুরা খাল বা বেগুনবাড়ি খাল নামে পরিচিতি পাচ্ছে। নদী থেকে খালে পরিচিতি পাওয়ার পাশাপাশি দখল ও দূষণের কবলে দিন দিন সংকুচিত হচ্ছে নদীটি। তাই এই নদী রক্ষায় দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়ার দাবিতে নদীতে কাগজের নৌকা ভাসিয়ে ভিন্নধর্মী প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেছে নদী রক্ষায় কাজ করা পরিবেশবাদী সংগঠন নোঙর বাংলাদেশ। 

মঙ্গলবার (৫ অক্টোবর) রাজধানীর মেরাদিয়া গুদারাঘাটে মানববন্ধন শেষে ব্যতিক্রমী এই কর্মসূচি পালন করা হয়। এতে অংশ নেন স্থানীয়রা। 

নৌকা ভাসানোর আগে নদীর পাড়ে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা। 

এতে বক্তারা অভিযোগ করেন, নদীটিকে সরকারি নথিপত্রে ভুল নাম দিয়ে খালে পরিণত করা হয়েছে। একই সংগে ময়লার ডাম্পিং স্টেশন তৈরি করে নদীটি দখলে নেতৃত্ব দিচ্ছে খোদ সিটি করপোরেশন। ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের তৈরি করা ডাম্পিং স্টেশনকে ঘিরে প্রতিনিয়ত গড়ে উঠছে বড় বড় স্থাপনা। এর মাধ্যমে নদীটির খাল পরিচয় হারিয়ে ড্রেনে পরিণত হতেও বেশি দিন লাগবে না বলে অভিযোগ তাঁদের।

শিগগিরই সরকারি নথিপত্রে নড়াইকে তার নিজ নামে পরিচিত করার পাশাপাশি নদীটি সংরক্ষণে দ্রুত সীমানা পিলার দেওয়ারও দাবি জানান তাঁরা। 

এসময় নোঙর বাংলাদেশ-এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সুমন শামস বলেন, নড়াই নদী হয়ে রাজধানীর মাঝ দিয়ে একসময় সংযোগ ছিলো শীতলক্ষ্যা নদীর। কিন্তু একে একে এই নদীকে আমরা হত্যা করেছি। তার কুফল আমরা ভোগও করছি। ইতিমধ্যে রাজধানীর অনেক খাল হারিয়েছে বলে জলাবদ্ধতা তৈরি হয়েছে। নড়াই এখনও বালু নদীর সংগে মিশে শীতলক্ষ্যা’র সংগে বহমান। এটাকে খাল নামে পরিচিত করে হত্যার ষড়যন্ত্র হচ্ছে। আমরা এই ষড়যন্ত্র প্রতিরোধে আন্দোলনে নেমেছি। আজ প্রতীকী কর্মসূচি করলাম আগামীতে আরও বড় কর্মসূচি নেবো।

যতোদিন এই নদী রক্ষায় পদক্ষেপ নেওয়া না হবে ততোদিন আন্দোলন চলবে বলেও জানান নোঙর-এর সভাপতি।

বিভি/কেএস/এএন

মন্তব্য করুন: