• NEWS PORTAL

  • সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২

স্বাচিপের সম্মেলন আজ, ত্যাগী-পরীক্ষিতরাই মূল্যায়িত হবে

প্রকাশিত: ১০:২৮, ২৫ নভেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
স্বাচিপের সম্মেলন আজ,  ত্যাগী-পরীক্ষিতরাই মূল্যায়িত হবে

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সমর্থিত চিকিৎসকদের সংগঠন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) পঞ্চম কেন্দ্রীয় সম্মেলন আজ। সম্মেলনকে ঘিরে স্বাচিপের শীর্ষ পদে স্থান পেতে দৌড়ঝাঁপ করছেন পদপ্রত্যাশীরা। চলছে জোর লবিং-তদবির। পদপ্রত্যাশীরা রাত-দিন প্রভাবশালী রাজনীতিবিদ, মন্ত্রী ও এমপিদের সঙ্গে দেখা করে দোয়া চাইছেন। 

রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্তি এই সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনিই আগামীর নেতৃত্ব বাছাই করবেন।

আওয়ামী লীগ সমর্থক চিকিৎসকদের সংগঠন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) গঠিত হয় ১৯৯৩ সালের ২৪ ডিসেম্বর। স্বাচিপের প্রতিষ্ঠাকালে অধ্যাপক এম এ কাদেরী সভাপতি ও মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন সাধারণ সম্পাদক করা হয়। ২০১৫ সালের ১৩ নভেম্বর স্বাচিপের সর্বশেষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংগঠনটির প্রতি ৫ বছর পর পর সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা। ২০১৯ সালে স্বাচিপের মেয়াদ শেষ হলেও করোনার কারণে সম্মেলনের আয়োজন করা যায়নি। বর্তমানে সারা দেশে স্বাচিপের সদস্য সংখ্যা ২০ হাজারেরও বেশি। 

সবশেষ অধ্যাপক ডা. ইকবাল আর্সলান সভাপতি ও অধ্যাপক ডা. মো. আবদুল আজিজকে মহাসচিব করে ১৫১ সদস্যবিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়। বর্তমানে স্বাচিপের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রতি দুই বছরে একবার সম্মেলন করার হওয়ার বিধান আছে। এ ছাড়া সভাপতি ও মহাসচিবসহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ পদে সরাসরি নির্বাচনের সুযোগ আছে।

সভাপতি ও মহাসচিব পদে কমপক্ষে এক ডজন নেতার নাম বিভিন্নভাবে আলোচনায় উঠে এসেছে। আর নতুন কমিটি গঠন উপলক্ষে এরই মধ্যে পদপ্রত্যাশীদের জীবনবৃত্তান্ত সংগ্রহ করেছে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ। ত্যাগী ও পরীক্ষিত নেতাদের মূল্যায়ন করা হবে বলে বলেও নেতৃবৃন্দকে সাফ জানিয়ে দিয়েছে আওয়ামী লীগ।

সভাপতি পদে এখন পর্যন্ত যারা সবচেয়ে বেশি আলোচনায় রয়েছেন বর্তমান মহাসচিব অধ্যাপক ডা. এম এ আজিজ, বিএসএমএমইউর সাবেক উপাচার্য নিউরোসার্জন অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া, সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান খান, বর্তমান উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ, আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যাবিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা এবং স্বাচিপের বর্তমান সভাপতি অধ্যাপক ডা. ইকবাল আর্সলান।

মহাসচিব পদে শোনা যাচ্ছে বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং স্বাচিপের কার্যকরি কমিটির সদস্য ডা. মো. তারিক মেহেদী (পারভেজ), স্বাচিপের বর্তমান কোষাধ্যক্ষ ও স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবু ইউসুফ ফকির, বিএসএমএমইউর সার্জারি অনুষদের ডিন অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ হোসেন, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের রেডিওলজি বিভাগের অধ্যাপক ডা. শাহরিয়ার নবী শাকিল ও জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটের অধ্যাপক ডা. কামরুল হাসান মিলন ও ডা. কাজল কুমার কর্মকার। 

মন্তব্য করুন: