• NEWS PORTAL

  • বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

পল্টনে যানবাহন ও জনসাধারণের চলাচল বন্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৫:৩৭, ৮ ডিসেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
পল্টনে যানবাহন ও জনসাধারণের চলাচল বন্ধ

বিএনপি-পুলিশ, ছাত্রলীগ-যুবলীগ নেতাকর্মীদের সঙ্গে ত্রি-মুখী সংঘর্ষের পর বৃহস্পতিবার ব্যারিকেড দিয়ে নয়াপল্টন এলাকায় যানবাহন ও জনসাধারণের  চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে পুলিশ। সম্পূর্ণ নিরাপদ নিরাপদ না হওয়া পর্যন্ত এই অবস্থা বলবৎ থাকবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (অপারেশনস) বিপ্লব কুমার সরকার। 

বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে পল্টন থানার সামনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন। এই মুহূর্তে এখানে (পল্টনে) রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড পরিচালনার অবকাশ নেই বলেও জানান তিনি।

বিপ্লব কুমার সরকার আরও বলেন, আমরা এখন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়কে বলছি- প্লেস অব অকারেন্স (পিও)। তাদের দলীয় কার্যালয়টি কর্ডন করে রাখা হয়েছে। বিশেষজ্ঞ ও ক্রাইমসিনের লোকজন ছাড়া কেউ প্রবেশ করতে পারবে না। পুলিশের কাজ শেষ না হওয়া পর্যন্ত এখানে কিছুই হতে দেওয়া হবে না বলেও জানান বিপ্লব কুমার।

বিএনপি নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশ ছাত্রলীগ-যুবলীগের সংঘর্ষের পর নয়াপল্টন এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয় তালাবদ্ধ রয়েছে। কার্যালয়ের মূল ফটকের বাইরে কড়া পাহারায় রয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) সকাল থেকে বিএনপি কার্যালয়ে প্রবেশ করেননি কোনো নেতাকর্মী।

বুধবার রাতে কার্যালয়ে পুলিশের অভিযান শেষে ফটকে তালা দেওয়া হয় বলে জানান নিরাপত্তায় নিয়োজিত একজন। বৃহস্পতিবার সকালে ফকিরাপুল মোড় থেকে কাকরাইল মোড় পর্যন্ত পুরো সড়কে চেকপোস্ট বসিয়ে নিয়ন্ত্রণ করছে পুলিশ।

বুধবার (৭ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর নয়াপল্টনে ত্রি-মুখী সংঘর্ষ হয়। এতে একজন নিহত ও ২০ জন আহত হয়েছেন।

সংঘর্ষের পর বিকেলে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীসহ দলটির প্রায় সাড়ে ৪’শ নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। 

রাতে বিএনপির চেয়ারপারসনের গুলশানের কার্যালয়ে দলটির নীতিনির্ধারণী ফোরামের বৈঠকে ১০ ডিসেম্বর পূর্ব ঘোষিত সমাবেশ করার ব্যাপারে অনড় অবস্থান ব্যক্ত করেন।

বিভি/এইচএস

মন্তব্য করুন: