• NEWS PORTAL

মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

মাকড়সার জালে ব্যথা-ক্ষত উধাও!

প্রকাশিত: ০০:৪৪, ১৫ ডিসেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
মাকড়সার জালে ব্যথা-ক্ষত উধাও!

সিনেমার পর্দায় ‘স্পাইডার ম্যান’কে মনে ধরলেও বাড়ির কোণে মাকড়সার জাল মোটেও পছন্দ নয়। অতএব ঝুলঝাড়ুর হাতেই তার নিকেশ অবশ্যম্ভাবি। কিন্তু জানেন কি? অযাচিত এই জালগুলোতেই লুকিয়ে আছে জাদু।

আজ থেকে নয় এই সত্য বহু প্রাচীন। গ্রিক ও রোমানদের যুদ্ধের ইতিহাসে এর উল্লেখ পাওয়া যায়। সেই সময় যুদ্ধ-বিগ্রহ লেগেই থাকতো। সৈন্যদের চোট-আঘাত লাগা নিয়মিত ঘটনা ছিল। এই আঘাত দ্রুত যাতে সেরে যায়, সেই কারণেই মাকড়সার জাল গজের মতো চোটের উপর ব্যবহার করা হত। এতে নাকি ওষুধের থেকেও ভাল কাজ হতো।

সাম্প্রতিক এক গবেষণায় জানা গিয়েছে, মাকড়সার জালের এই ক্ষত নিরাময়ের অসামান্য ক্ষমতার কারণ এতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন 'কে' রয়েছে যা দ্রুত রক্ত জমাট বাঁধতে সাহায্য করে। মাকড়সার জালের অ্যান্টিসেপটিক ও অ্যান্টি ফাঙ্গাল ক্ষমতাও রয়েছে। যা শুধু চোট-আঘাতকেই সারিয়ে তুলতে সাহায্য করে না, লিগামেন্টের চোট সারিয়ে তুলতেও সাহায্য করে। এমন কী অঙ্গ প্রতিস্থাপনের ক্ষেত্রেও এর অবদান অনস্বীকার্য।

তবে খেয়াল রাখতে হবে, মাকড়সার জালটি যেন অপরিষ্কার না হয় কিংবা বিষাক্ত না হয়। এর জন্য কী করতে হবে? যেখান থেকে মাকড়সার জাল সংগ্রহ করবেন। দেখে নিতে হবে যেখান থেকে জাল নিচ্ছেন সেখানে ব্ল্যাক উইডো কিংবা অন্য কোনো বিষাক্ত প্রাণি রয়েছে কি না। আর ভালো করে দেখে নিতে হবে জালে যেন কোনো নোংরা কিছু আটকে না থাকে। তারপর জালটিকে গুটিয়ে গজের মতো করে নিতে হবে এবং চোটের উপর লাগিয়ে তাতে ব্যান্ডেজ বেঁধে দিতে হবে। নিমেষে ব্যথা উধাও৷

বিভি/টিটি

মন্তব্য করুন: