• NEWS PORTAL

  • বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

২ যুবতী ও ৩ যুবক মিলে করতো অপহরণ, অবশেষে...

প্রকাশিত: ২২:৩৫, ৪ ডিসেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
২ যুবতী ও ৩ যুবক মিলে করতো অপহরণ, অবশেষে...

একই এলাকার যুবক-যুবতী মিলে বিভিন্ন মানুষকে টার্গেট করে অপহরণ এবং মুক্তিপণ আদায় করতে একটি চক্র গড়ে তোলে। পুলিশ তাদের ওই চক্রের ২ যুবতী ও ৩ যুবককে আটক করেছে। নাটোরের বড়াইগ্রামে ঘটেছে ঘটনাটি।

মুক্তিপণের দাবিতে অপহৃত ইনস্যুরেন্স কর্মী আলমগীর হোসেনকে উদ্ধার করেছে ডিবি পুলিশ। এ সময় ২ নারীসহ ৫ অপহরণকারী চক্রের সক্রিয় সদস্যকে আটক করা হয়।

নাটোর ডিবি পুলিশের ওসি আবু সাদাদ জানান, পলিসি খোলার কথা বলে শনিবার বিকালে মিট লাইফ ইনস্যুরেন্সের মাঠকর্মী আলমগীর হোসেনকে ফোন করে প্রিয়াংকা খাতুন নামে এক নারী। পরে ইনস্যুরেন্স কর্মী আলমগীর নাটোর অফিস থেকে বড়াইগ্রাম উপজেলার আহমেদপুর এলাকায় গেলে প্রিয়াংকা তার সহযোগীদের সহায়তায় আলমগীরকে একটি বাসায় নিয়ে বেঁধে ২ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে।

আলমগীর তার এক বন্ধুর মাধ্যমে বিকাশে ১০ হাজার টাকা পরিশোধ করে। পরে তার বন্ধু ডিবি পুলিশকে ঘটনাটি জানালে বিকাশ নম্বরের সূত্র ধরে গত রাতব্যাপী বড়াইগ্রাম উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে আলমগীরকে উদ্ধার করে। 

সেই সাথে অপহরণকারী চক্রের সদস্য প্রিয়াংকা, সোহাগী খাতুন, নাফিউল ইসলাম, জুয়েল রানা ও আমিনুলকে আটক করে ডিবি পুলিশ।

তিনি বলেন, এই অপহরণকারী চক্রটি দীর্ঘদিন ধরেই তাদের নারী সদস্যদের ব্যবহার করে ভুক্তভোগীদের জিম্মি করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিতো। চক্রের অন্য সদস্যদের ধরতে অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।

বিভি/এজেড

মন্তব্য করুন: