• NEWS PORTAL

  • সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

সরকারি চাকরির ভুয়া নিয়োগপত্র দিয়ে টাকা আত্মসাৎ

নওগাঁ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৫:৫৮, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২

ফন্ট সাইজ
সরকারি চাকরির ভুয়া নিয়োগপত্র দিয়ে টাকা আত্মসাৎ

বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ে ড্রাইভার পদে চাকরি দেওয়ার নামে ভুয়া নিয়োগ (যোগদান) পত্র দিয়ে দুই লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে সেলিম রেজা বিদ্যুৎ নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে।

জানাগেছে, ভুক্তভোগী আব্দুর রাজ্জাক পেশায় একজন পিক-আপ চালক (সিনিয়র ড্রাইভার)। তিনি নওগাঁর মান্দা উপজেলার প্রসাদপুর ইউনিয়নের ইনায়েতপুর গ্রামের মৃত আমির হেসেনের ছেলে। অপরদিকে অভিযুক্ত সেলিম রেজা বিদ্যুৎ একই গ্রামের গ্রামের মৃত সেকেন্দার আলীর ছেলে।

ভুক্তভোগী জানান, সেলিম রেজা বিদ্যুৎ বাংলাদেশ সচিবালয়ের বস্ত্র ও পাঠ মন্ত্রণালয়ে এম,এল,এস,এস পদে চাকরি করেন বলে দাবি করেন। সচিবালয়ে চাকরির সুবাদে বিভিন্ন সচিব,মন্ত্রী ও সরকারি অন্যান্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে তার যোগাযোগ আছে মর্মে চাকরি দিতে পারবেন বলে ভুক্তভোগীকে আশ্বস্ত করেন। এরই একপর্যায়ে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের ড্রাইভার পদে নিয়োগের জন্য সম্প্রতি তার কাছ থেকে দুই লাখ টাকা গ্রহণ করেন। তিনি কথা দেন যে, নিয়োগপত্র ও যোগদানপত্র দ্রুত সরবরাহ করবেন। কিন্তু চাকরি দেওয়ার নাম করে টাকা নিয়ে এখন বিভিন্নভাবে টালবাহানা করছেন। 

এ ঘটনায় প্রতারণার শিকার হয়ে সর্বস্ব হারানো ভুক্তভোগী আব্দুর রাজ্জাক বিভিন্ন দফতরে লিখিত অভিযোগ দায়েরসহ একাধিকবার লিগ্যাল নোটিশ করেও কোনো প্রতিকার না পেয়ে চরম হতাশায় দিন কাটাচ্ছেন। এর থেকে তিনি পরিত্রাণ পেতে চান।

অভিযুক্ত সেলিম রেজা বিদ্যুৎ এর মোবাইল ফোনে একাধিকবার ফোন দেওয়ার পরেও তিনি ফোন রিসিভ না করায় তার মন্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

এ ব্যাপারে প্রসাদপুর ইউপি চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আব্দুল মতিন মন্ডল বলেন, গত কয়েকদিন আগে বিষয়টি ভুক্তভোগী জানিয়েছে। বাদী এবং বিবাদী তারা দুজনে একই এলাকার এবং একে অপরের আত্মীয়। তবে অভিযোগের বিষয়টি কতদূর সত্য, তা উভয়ের কাছ থেকে সরাসরি শোনার পর একটা সমাধানের উদ্যোগ নেওয়া হবে।

বিভি/টিটি

মন্তব্য করুন: